Amphan Effect-3Miscellaneous 

সবুজ ধ্বংসের যেন অভিযানে নেমেছিল ঘূর্ণিঝড় “আম্ফান”

কাজকেরিয়ার অনলাইন নিউজ ডেস্ক : মহানগরীতে প্রায় ৫ হাজার গাছ ভেঙেছে “আম্ফান” দাপটে। জর্জরিত জনজীবন। এই ঘূর্ণিঝড়ের প্রলয়ে ধ্বংস হল কলকাতা মহানগরীর প্রায় ৫ হাজার গাছ। শহরের উত্তর থেকে দক্ষিণ সব প্রান্তেই সবুজ ধ্বংসের যেন অভিযানে নেমেছিল ঘূর্ণিঝড় “আম্ফান”। সব এলাকাতেই ধ্বংসের চিত্র। শহরের বায়ুদূষণের মাত্রা রক্ষায় যাদের উল্লেখযোগ্য ভূমিকা ছিল তারা আজ ভূ-পতিত। নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, শহরের প্রচুর গাছ নষ্ট হয়েছে “আম্ফান”-এ। ৪০ থেকে ৫০ শতাংশ। হর্টিকালচারকে বলেছি, গাছের চারা তৈরি করতে হবে। হাজরা থেকে এক্সাইড মোড় মাত্র ২ কিলোমিটার। সম্প্রতি ঝড়ের দাপটে শুধু ওইটুকু অংশেই উপড়ে পড়েছে প্রায় ২০টি গাছ। টালিগঞ্জ ফাঁড়ি থেকে করুণাময়ী সেতু পর্যন্ত রাস্তায় পড়েছে ছোট-বড় বহু গাছ। আবার টালা থেকে টালিগঞ্জ, বেহালা থেকে বৌবাজার সর্বত্রই বড় বড় গাছ ভেঙে পড়েছে, কোথাও বা উপড়ে পড়েছে। চিত্তরঞ্জন অ্যাভিনিউ, পার্ক স্ট্রিট, সাদার্ন অ্যাভিনিউ, হরিশ মুখার্জি রোড, লেক গার্ডেন্স, প্রিন্স আনোয়ার শাহ রোড, বেহালা পর্ণশ্রী, ডায়মন্ড হারবার রোড, রামগড়, রাসবিহারী অ্যাভিনিউ, বাঘা যতীন, রাজা সুবোধ মল্লিক রোড, পার্ক সার্কাস এবং এনএসসি বসু রোড-সহ শহরের সব রাস্তাতেই গাছ ভেঙে পড়ে। পথ চলাচল পুরোপুরি বন্ধ হয়ে যায় শহরে। এ দৃশ্য শহরের বহু মানুষ দেখেনি। কোথাও-কোথাও ভেঙে পড়েছে বিদ্যুৎ ও ট্র্যাফিক সিগন্যালের স্তম্ভও। আবার কোথাও ট্রামলাইনের তারে জড়িয়ে মাথা নিচু করে রয়েছে গাছ। এই ভয়াবহ ছবি এখনকার প্রবীণ মানুষও কখনও দেখেননি। আয়লাকে টেক্কা মেরে কয়েক কদম এগিয়ে গিয়েছে “আম্ফান”।

Related posts

Leave a Comment