EyesMiscellaneous 

চোখকে অবহেলা নয়, চোখের সমস্যা নিরসনে পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের

কাজকেরিয়ার অনলাইন নিউজ ডেস্ক : বাড়িতে বসে টানা কাজের চাপ থাকলে বাড়তে পারে চোখের সমস্যা। এর থেকে মুক্তি পাওয়ার জন্য বিশেষজ্ঞ চক্ষু বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন কিছু প্রয়োজনীয় পরামর্শ। আমরা সাধারণভাবে সবাই জানি চোখ ছাড়া গোটা পৃথিবীটা অন্ধকার। বর্তমান সময়ে বাড়িতে বসে কম্পিউটার বা ল্যাপটপে একটানা কাজ করে যেতে হচ্ছে অনেককে। অনেকেরই আবার অবসর কাটছে দীর্ঘসময় মোবাইলে বা টিভিতে চোখ রেখে। এতে চোখের কতটা ক্ষতি হচ্ছে তা আমরা নিজেরাই জানি না। বিশেষজ্ঞ চক্ষু বিশেষজ্ঞরা এক্ষেত্রে জানিয়েছেন, চোখ দিয়ে জল পড়া, চোখ লাল হয়ে যাওয়া, চোখ ও মাথার যন্ত্রণা-সহ চোখ ড্রাই হয়ে যাওয়া প্রভৃতি নানা সমস্যা এই সময় দেখা দিতে পারে। চোখকে ভাল রাখতে হলে কম্পিউটার, ল্যাপটপ বা ট্যাবে একটানা কাজ করা উচিত নয়। মাঝে মধ্যে বিরতি দিতে হবে। এক্ষেত্রে চোখের পলক ফেলতে পারলে ভাল হয়। এটি ব্যায়ামের কাজ করতে পারে। টানা কাজ করলে চোখ শুষ্কও হবে না। আবার চোখের লেভেলে কম্পিউটার বা ল্যাপটপের স্ক্রিন থাকা চাই। অ্যান্টিগ্লেয়ার স্ক্রিন লাগানো থাকলে ভাল হয়। এক্ষেত্রে অ্যান্টি রিফ্লেকটিভ গ্লাসের চশমাও ব্যবহার করতে পারেন। কম আলো বা অন্ধকারে কাজ করা একেবারেই উচিত হবে না। বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা আরও জানিয়েছেন, চোখ ভাল রাখতে গেলে প্রচুর পরিমাণে জলপান করা দরকার। এরফলে চোখ পরিষ্কার থাকবে এবং সুস্থ থাকবে। চোখের সমস্যা তৈরি হলে চিকিৎসকের পরামর্শ মতো আই-ড্রপ ব্যবহার করতে পারেন। খাদ্য তালিকায় ফল ও আনাজ রাখা জরুরি চোখকে ভাল রাখতে হলে। বেরি জাতীয় ফল ও ছোট মাছ চোখের পক্ষে ভাল। আবার কাজের সময়ের অবসরে মাঝে মধ্যে ঠান্ডা জলের ঝাপটা দেওয়াও দরকার। এক্ষেত্রে চোখে রক্ত সঞ্চালন বাড়ে এবং চোখ আর্দ্র থাকে। খুব ঠান্ডা জল ও খুব গরম জল দেওয়া উচিত নয়। চোখকে ভাল রাখতে আঙুল দিয়ে আলতো করে ম্যাসাজও করতে পারেন। চোখের বিশ্রামের জন্য পর্যাপ্ত ঘুমও দরকার। ৭-৮ ঘন্টা ঘুমতে পারলে চোখ সুস্থ থাকবে। পাওয়ারের সমস্যা দেখা দিলে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া খুবই জরুরি।

Related posts

Leave a Comment