closed factoryMiscellaneous 

অর্থনৈতিক মন্দার প্রভূত সম্ভাবনা বিশেষজ্ঞমহলের

কাজকেরিয়ার অনলাইন নিউজ ডেস্ক: লকডাউনে বিপর্যস্ত পরিস্থিতিতে সারাদেশে কারখানার কাজকর্ম তলানিতে ঠেকেছে। সূত্রের খবর, বণিকসভা সিআইআই-এর এক সমীক্ষায় ৩০০ সংস্থার সিইওদের ৪৫ শতাংশই প্রথম ৪০ দিনের লকডাউনে এপ্রিল-জুন ত্রৈমাসিকের আয় ৪০% কমে যাওয়ার আশঙ্কা প্রকাশ করে। ব্রিটিনের আইএইচএস মার্কিন সংস্থা সূত্রে জানানো হয়েছে, তাদের ‘ইন্ডিয়া ম্যানুফ্যাকচারিং পার্চেজিং ম্যানেজার্স’ (পিএমআই) সূচক মার্চ মাসের ৫১.৮ থেকে ২৭.৪-এ নেমে এসেছে।

উল্লেখ্য, ১৫ বছর আগে শুরু হওয়া এই সূচকে এত দ্রুত পতন লক্ষ্য করা যায়নি। পিএমআই সূচক ৫০-এর ওপরে থাকার মানে ম্যানুফ্যাকচারিং ক্ষেত্রে উৎপাদন বৃদ্ধি হওয়া। আবার ওই সুচিক ৫০-এর নিচে নেমে যাওয়া মানে কল-কারখানায় উৎপাদন কমছে। এপ্রিল মাসের পিএমআই সূচক ২৭.৪-এ নেমে যাওয়া বলতে বোঝানো হয়েছে, ওই মাসে দেশের কারখানাগুলোতে কাজকর্ম প্রায় বন্ধই। পূর্বে টানা ৩২ মাস ৫০ পয়েন্টের ওপরেই ছিল পিএমআই সূচক।

জানা গিয়েছে, মার্চ মাসেই রপ্তানি অনেক কমে যায়। আবার এপ্রিল মাসে রপ্তানির অর্ডার তলানিতে পৌঁছে যায়। লকডাউন পরিস্থিতির কারণে দেশে কারখানা, ব্যবসা-বাণিজ্য প্রায় সম্পূর্ণ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় সংস্থাগুলি কর্মী ছাঁটাই ও বেতনহ্রাস শুরু করে। যার জেরে ক্রেতা চাহিদাও ধাক্কা খেয়েছে। একটি রিপোর্টে জানানো হয়েছে, আগামী ১ বছর পর পরিস্থিতি নিয়ে সংস্থাগুলি খানিকটা আশাবাদী হলেও তা ঐতিহাসিক সূচকের ধারে-কাছে নয়। এরথেকেই প্রমাণিত, আগামীতে অর্থনৈতিক মন্দার প্রভূত সম্ভাবনা দেখছেন বিশেষজ্ঞমহলের বড় একটা অংশ।

Related posts

Leave a Comment