rel neerMiscellaneous 

রেল নীরের পানীয় জলের বোতল নষ্টের সম্ভাবনা, শঙ্কায় কর্তৃপক্ষ

কাজকেরিয়ার অনলাইন নিউজ ডেস্ক: মেয়াদ ফুরোনোর আগে ব্যবহার করা না গেলে নষ্ট হয়ে যাবে রেল নীরের লক্ষ লক্ষ পানীয় জলের বোতল। রেল নীর কর্তৃপক্ষ এমনই আশঙ্কার কথা জানিয়েছে। সূত্রের খবর, করোনা বিপর্যস্ত পরিস্থিতিতে দেশব্যাপী লকডাউন পর্ব চলছে। উৎপাদন সম্পূর্ণ বন্ধ থাকার কারণে রেল নীরের কয়েকটি প্লান্টে পানীয় জলের বোতল মজুত রয়েছে।

এক্ষেত্রে রেল নীর কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, উৎপাদনের পরবর্তী ৬ মাস পর্যন্ত ব্যবহারযোগ্য থাকে এই পানীয় জলের বোতল। ৬ মাসের পরে অব্যবহৃত অবস্থায় পড়ে থাকলে পানীয় জলের বোতল নষ্ট করে ফেলতে হয়। এমতপরিস্থিতিতে স্টক কমাতে বিভিন্ন হাসপাতাল ও কোভিড ডিউটিতে থাকা দিল্লি পুলিশকেও পানীয় জলের বোতল সরবরাহ করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে রেল নীর কর্তৃপক্ষ।

ওই সংস্থার জেনারেল ম্যানেজার সাকেত চাঁদ শ্রীবাস্তব জানিয়েছেন, দেশের এক একটি প্লান্টে পানীয় জলের বোতল ভর্তি গড়ে ২০-২৫ হাজার করে কার্টন মজুত রয়েছে। একটি কার্টনে ১২টি করে রেল নীরের পানীয় জলের বোতল থাকে। সেই হিসেবে অনুযায়ী বর্তমানে রেল নীরের বিভিন্ন কারখানায় গড়ে প্রায় ৩ লক্ষ করে পানীয় জলের বোতল মজুত রয়েছে। সবমিলিয়ে বাড়ছে শঙ্কা।

সংস্থা সূত্রে খবর, বিভিন্ন হাসপাতাল বা দিল্লি পুলিশকে যে পানীয় জলের বোতল দেওয়া হচ্ছে তা ডিসেম্বর ও জানুয়ারি মাসের স্টক থেকেই সরবরাহ হচ্ছে। হিসেবে অনুযায়ী ডিসেম্বর ও জানুয়ারি মাসে সেগুলোর উৎপাদন হয়েছে। সেইসব পানীয় জলের বোতল আগামী জুন বা জুলাই মাসের পর আর ব্যবহার করা যাবে না। উল্লেখ্য, পশ্চিমবঙ্গে হাওড়ার সাঁকরাইলে রেল নীরের একটি কারখানা রয়েছে। উদ্বোধন হলেও লকডাউন পর্ব চালু হওয়ায় উৎপাদন শুরু হয়নি।

Related posts

Leave a Comment