Dharampal GulatiMiscellaneous 

এমডিএইচ মশালা সংস্থার মালিক ধরমপাল গুলাটি প্রয়াত

কাজকেরিয়ার অনলাইন নিউজ ডেস্কঃ ধরমপাল গুলাটি ১৯৩৩ সালের ২মার্চ অধুনা পাকিস্তানের শিয়ালকোটে জন্মগ্রহণ করেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৯৮ বছর। আজ সকালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। সম্প্রতি তিনি করোনার ভাইরাসে সংক্রামিত হয়েছিলেন। তবে তিনি করোনাকে জয় করতে সমর্থও হন। তিনি পদ্মভূষণ পুরষ্কারে ভূষিত হয়েছিলেন। জানা গিয়েছে, হার্ট অ্যাটাকের কারণে তাঁর মৃত্যু হয়েছে। মহাসিয়া দি হট্টির (এমডিএইচ) মশলা সংস্থার মালিক মহাশিয়া ধর্মপাল গুলাটির মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ শোক ব্যক্ত করে বলেছেন, “তিনি ছিলেন ভারতীয় ইন্ডাস্ট্রির সুপরিচিত ব্যক্তিত্ব। সমাজসেবার জন্য করা তাঁর কাজও প্রশংসনীয়। তাঁর পরিবার ও ভক্তদের প্রতি আমার সমবেদনা রইলো”।

ধর্মপাল গুলাটিকে কঠোর পরিশ্রমের অপূর্ব প্রতীক হিসাবে বর্ণনা করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ বলেছেন- ‘সৌম্য ব্যক্তিত্বের ধনী ভদ্রলোক, ধর্মপালজি ছিলেন সংগ্রাম ও কঠোর পরিশ্রমের এক অপূর্ব প্রতীক। ধর্মপালজির জীবন, যিনি নিজের পরিশ্রমের মধ্য দিয়ে সাফল্যের শিখর যেভাবে অর্জন করেন, তা প্রতিটি মানুষকে অনুপ্রাণিত করবে। ঈশ্বর তাঁর বিদেহী আত্মার মুক্তিও তাঁর পরিবারকে এই দুঃখ সহ্য করার শক্তি দান করুন”। ধর্মপাল গুলেটিকে ব্যবসা ও শিল্পে অসামান্য অবদানের জন্য গত বছর রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ পদ্মভূষণে ভূষিত করেছিলেন।

দেশ বিভাগের পরে তিনি ভারতে এসেছিলেন, তখন তাঁর কাছে মাত্র ১৫০০ টাকা ছিল। ভারতে এসে তিনি পরিবারকে খাওয়ানোর জন্য একটি টাঙ্গাও চালাতেন। এরপরে তিনি দিল্লির করোল বাগের আজমল খান রোডে একটি মশলার দোকান খোলেন। মসলা ব্যবসা ধীরে ধীরে বৃদ্ধি পেয়ে আজ ভারত ছাড়াও দুবাইতে তাঁদের ১৮ টি মশলার কারখানা রয়েছে। একটি বিশেষ বিষয় হ’ল- তিনি নিজেও নিজের মশলার বিজ্ঞাপন দিতেন। তিনি বিশ্বের প্রবীণতম তারকা হিসাবে বিবেচিত হন।

Related posts

Leave a Comment