make and syrupMiscellaneous Trending News 

গরমকালে রান্নাঘরে বানিয়ে নিতে পারেন সুস্বাদু নানা সরবত

কাজকেরিয়ার অনলাইন নিউজ ডেস্ক: বাজারের বোতলবন্দি পানীয়ের উপর ভরসা না রেখে রান্নাঘরে ফল ও মশলা থেকে সুস্বাদু কয়েকটি পানীয় বানিয়ে নেওয়া যেতে পারে। গরমকালের খাদ্যতালিকার মধ্যে অন্যতম হল শরবত। গরমে ঘামের মাধ্যমে শরীর থেকে নুন কমে যায়। তার ফলে শরীর অবসন্ন হয়ে পড়ে। শরবতে নুনের সঙ্গে সামান্য চিনি বা গুড় মিশিয়ে নিলে কোনও অসুবিধা নেই ।

প্রথমেই আমপোড়া শরবতের কথা বলা যায়। কাঁচা আম,পুদিনা,ভাজা মশলা প্রভৃতি মিশিয়ে নিলে স্বাদের দিক থেকে তা সুস্বাদু হয়ে ওঠে। কাঁচা আম পুড়িয়ে শাঁসটা বের করে নিয়ে চটকে মাখতে হবে। এর সঙ্গে পুদিনাপাতার কুচিও মিশিয়ে নিতে হবে। এক্ষেত্রে সাধারণ নুনের পরিবর্তে বিটনুন ব্যবহার করা যেতে পারে। চিনি-গুড় মিশিয়ে শরবতে মিষ্টিভাব আনতে হবে।

গরমকালে অনেকেই হজমের সমস্যায় ভোগেন। শরীর সুস্থ রাখতে তাঁদের জন্য আদর্শ পানীয় হচ্ছে জলজিরা। এছাড়া লস্যিও রয়েছে। আবার ঘোল ও দই জাতীয় পানীয় তৈরি করা যায় । বেলের শরবতও গরমের সময় উপকারী। এক্ষেত্রে বেল চটকে দানা বাদ দিয়ে কেবল শাঁসটুকু বের করে নিতে হবে। দই, চিনি, বিটনুন, লেবুর রস ও ঠান্ডা জল দিয়ে তৈরি করে ফেলতে পারেন সু-স্বাদু শরবত।

ডাবের জল গরমকালে তৃপ্তি দিয়ে থাকে। শরীর শীতল রাখার জন্য ডাবের জল অনেক উপকারী। এছাড়া আখের রসও রয়েছে। আখ টুকরো করে কেটে খোসা ছাড়িয়ে ব্লেন্ডারে পিষে ছেঁকে নিলে তৈরি হয়ে যাবে স্বাদযুক্ত আখের রস। গরমে লেবু-চিনির শরবতও উপকারী। এই শরবত নানা কারণে উপাদেয় হতে পারে। শরীর সুস্থ রাখতে ও ঠান্ডা রাখার জন্য এটি খাওয়া যেতে পারে।
আম পাকা ও মিষ্টি হলে বাড়তি চিনি না দিলেও চলবে। দুধের সঙ্গে ব্লেন্ড করে নিলেই হবে। ঠান্ডা করে পরিবেশন করা যেতে পারে।

আবার ফুল ফ্যাট দুধ, সামান্য চিনি আর কফি পাউডার বরফসহ ব্লেন্ড করে নিলেই তৈরি হয়ে যাবে এই পানীয়। স্বাদ বাড়ানোর জন্য অল্প দারচিনি গুঁড়ো ও সামান্য ডার্ক চকোলেট পাউডার মেশাতে হবে । কোল্ড কফি গরমে উপকারী ও স্বাদযুক্ত। গরমে ছাতুর শরবতও রয়েছে। গরমকালে আপনার আদর্শ ব্রেকফাস্টও হতে পারে ছাতু। সামান্য লেবুর রস, নুন, চিনি আর জল মিশিয়ে নেওয়া যেতে পারে । একটু ভাজা মশলা ছড়িয়ে দিলে ভালো হয়।

খবরটি পড়ে ভালো লাগলে লাইক-কমেন্ট ও শেয়ার করবেন।

Related posts

Leave a Comment